আমার জীবনের বড় প্রাপ্তি : হাবিবুল বাশার

প্রচ্ছদ » খেলা » আমার জীবনের বড় প্রাপ্তি : হাবিবুল বাশার

পুঁজিবাজার রিপোর্ট ডেস্ক : পাকিস্তানের শহীদ আফ্রিদি, বাংলাদেশের হাবিবুল বাশার, ইংল্যান্ডের ইয়ান বেল, নিউজিল্যান্ডে শেন বন্ড, অস্ট্রেলিয়ার মাইক হাসি, ভারতের হরভজন সিং, শ্রীলঙ্কার কুমার সাঙ্গাকারা ও দক্ষিণ আফ্রিকার গ্রায়েম স্মিথ; আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের উজ্জ্বল ধ্রুবতারা। ক্রিকেটের আট তারকাকে আসন্ন চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে অ্যাম্বাসেডর হিসেবে যুক্ত করেছে আইসিসি।

চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে অ্যাম্বাসেডর হিসেবে যুক্ত হওয়া ক্রিকেটাররা মিলিয়ে ১৭৭৪ ওয়ানডে ম্যাচ খেলেছেন। ৪৮ সেঞ্চুরিতে রান করেছেন ৫১৯০৬। বল হাতে নিয়েছেন ৮৩৮ উইকেট। চ্যাম্পিয়নস ট্রফি চলাকালীন সময়ে বিভিন্ন অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন তারা। ক্রিকেটের প্রসার করবেন, পাশাপাশি ক্রিকেট দীক্ষাও দেবেন। ২০০৬ সালে হাবিবুল বাশারের নেতৃত্বে শেষবার চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে খেলেছিল বাংলাদেশ। ক্রিকেটের এত বড় মঞ্চে অ্যাম্বাসেডর হিসেবে যুক্ত হতে পেরে নিজেকে সৌভাগ্যবান ভাবছেন হাবিবুল।

বুধবার দুপুরে ফতুল্লায় হাবিবুল নিজের প্রতিক্রিয়া জানান এভাবে, ‘কুমার সাঙ্গাকারা, গ্রায়েম স্মিথ, মাইক হাসির মতো ক্রিকেটাররা যেখানে যুক্ত হয়েছে, সেখানে আমার উপস্থিতি সত্যিই বিশেষ কিছু। আইসিসিকে ধন্যবাদ। এটা আমার জীবনের অন্যতম বড় একটি প্রাপ্তি। অ্যাম্বাসেডর হিসেবে আমার দায়িত্বও আছে। আশা করছি আইসিসি যে উদ্দেশ্য ও লক্ষ্য নিয়ে আমাকে যুক্ত করেছে, সেটা পূরণ করতে পারব। এতে পরবর্তীতে বড় কিছুতেও বাংলাদেশকে প্রতিনিধিত্ব করতে পারব।’

প্রায় এক যুগ আগে বাংলাদেশ খেলেছিল চ্যাম্পিয়নস ট্রফি। এবার মাশরাফির নেতৃত্বে আবারও খেলবে সাকিব, মুশফিক, তামিমরা। হাবিবুলের আশা এবার ইংল্যান্ডের মাটিতে তারুণ্য নির্ভর দলটি ভালো কিছু উপহার দেবে দেশকে, ‘এক দশকেরও বেশি সময় হয়েছে বাংলাদেশ শেষ এ টুর্নামেন্টে খেলেছিল। আমি সত্যিই এবারের আসরের জন্য মুখিয়ে আছি। তারুণ্য নির্ভর একটি দল বাংলাদেশকে প্রতিনিধিত্ব করবে। আশা করছি ভালো ফল বয়ে আনতে পারবে তারা।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Live Video

সম্পাদকীয়

অনুসন্ধানী

বিনিয়োগকারীর কথা

আর্কাইভস

December ২০২০
Mon Tue Wed Thu Fri Sat Sun
« Nov    
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০৩১