রাষ্ট্রপতি পদে হামিদকে জাপার সমর্থন

প্রচ্ছদ » রাজনীতি » রাষ্ট্রপতি পদে হামিদকে জাপার সমর্থন

japa-logনিজস্ব প্রতিবেদক: রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মো. আবদুল হামিদকে সমর্থন দিয়েছে জাতীয় সংসদের বিরোধী দল জাতীয় পার্টি (জাপা)। সোমবার রাজধানীর বনানীতে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলের প্রেসিডিয়াম সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

জাপা চেয়ারম্যানের প্রেস অ্যান্ড পলিটিক্যাল সেক্রেটারি সুনীল শুভ রায় এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, আমরা প্রস্তাব করেছি, সভায় এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়েছে। প্রেসিডিয়াম সভায় সভাপতিত্ব করেন দলটির চেয়ারম্যান এইচ এম এরশাদ।

তিনি আরও বলেন, এ ছাড়া সভায় আগামী ২৪ মার্চ ঢাকায় মহাসমাবেশ, এপ্রিলে লং মার্চ, রোড মার্চ, লঞ্চ মার্চ এবং রেল মার্চ করারও সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

এদিকে রাষ্ট্রপতি পদে মো. আবদুল হামিদের পক্ষে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

সোমবার দুপুর রাজধানীর নির্বাচন ভবনে গিয়ে সিইসিকে এম নুরুল হুদার কাছে এই মনোনয়নপত্র জমা দেন তিনি।

এ সময় জাতীয় সংসদের প্রধান হুইপ আ স ম ফিরোজ, বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমদ, শিল্পমন্ত্রী আমীর হোসেন আমু, সমাজকল্যাণমন্ত্রী রাশেদ খান মেমন উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে শুক্রবার নির্বাচন ভবনে প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কার্যালয় থেকে আবদুল হামিদের পক্ষ থেকে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছিলেন জাতীয় সংসদের প্রধান হুইপ আ স ম ফিরোজের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল।

নির্বাচন কমিশন (ইসি) ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী দেশের ২১তম রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য ইসির কাছে ৫ ফেব্রুয়ারির মধ্যে মনোনয়নপত্র দাখিল করতে হবে। এদিন সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৪টার মধ্যে মনোনয়নপত্র জমা নেয়া হবে। মনোনয়নপত্র পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হবে ৭ ফেব্রুয়ারি। আর প্রত্যাহারের শেষ দিন ১০ ফেব্রুয়ারি।

সংসদ ভবনের অধিবেশন কক্ষে ভোটগ্রহণ করা হবে ১৮ ফেব্রুয়ারি বিকেল ২টা থেকে ৫টা পর্যন্ত। তবে অন্য কোনো প্রার্থী না থাকলে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে না।

সংশ্লিষ্টরা জানান, ২০১৩ সালের ২৪ এপ্রিল দায়িত্ব গ্রহণ করা বর্তমান রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদের পাঁচ বছরের মেয়াদ এ বছরের ২৩ এপ্রিল শেষ হবে। সংবিধানের ১২৩ (১) অনুচ্ছেদে বলা হয়েছে, ‘রাষ্ট্রপতি-পদের মেয়াদ অবসানের কারণে উক্ত পদ শূন্য হইলে মেয়াদ-সমাপ্তির তারিখের পূর্ববর্তী নব্বই হইতে ষাট দিনের মধ্যে শূন্য পদ পূরণের জন্য নির্বাচন অনুষ্ঠিত হইবে।

এবারের নির্বাচনে ভোটার ৩৪৮ জন। সংসদ সদস্য ৩৫০ জন হলেও মৃত্যুজনিত কারণে দুটি আসন শূন্য রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Live Video

সম্পাদকীয়

অনুসন্ধানী

বিনিয়োগকারীর কথা

আর্কাইভস

March ২০২১
Mon Tue Wed Thu Fri Sat Sun
« Feb    
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১